লিভারের চর্বি নিয়ন্ত্রণের উপায়

সুস্থ থাকার জন্য লিভার সুস্থ থাকাটাও অত্যন্ত জরুরি। বর্তমানের জীবনযাত্রায় আর ভেজাল খাবার, লিভারের ব্যাপক ক্ষতি করে। চিকিৎসকেরা বলছেন, লিভারে নির্দিষ্ট চর্বি থাকে। নির্দিষ্ট সেই চর্বি খারাপ না। তবে নির্দিষ্টের গণ্ডি পেরোলে শরীরের জন্য তা হুমকি স্বরূপ। চিকিৎসকদের মতে, ফ্যাটি লিভার দুই রকম। অ্যালকোহলিক ও নন-অ্যালকোহলিক।

মাত্রাতিরিক্ত মদ্যপান থেকে লিভারে চর্বি জমলে তা অ্যালকোহলিক ফ্যাট। কিন্তু দ্বিতীয় ক্ষেত্রটি মূলত খাদ্যতালিকায় অতিরিক্ত তেল, ফ্যাট জাতীয় উপাদান বেড়ে গেলে হয়। কখনও কখনও নন-অ্যালকোহলিক ফ্যাটি লিভার বংশগত কারণেও হতে পারে।

ফ্যাটি লিভারের কারণে দেখা দিতে পারে লিভার সিরোসিস। লিভার তার নিজস্ব কর্মক্ষমতা হারিয়ে মৃত্যুর দিকেও ঠেলে দিতে পারে।

আপনি চাইলে ঘরোয়া কিছু অভ্যাসে দূর করতে পারেন ফ্যাটি লিভার। আসুন জেনে নেই কীভাবে তৈরি করবেন লিভারের চর্বি নিয়ন্ত্রণে দুই পানীয়।

অ্যাপেল সাইডার ভিনিগার: প্রতিদিন খালি পেটে এক গ্লাস গরম পানিতে দু’ চামচ অ্যাপেল সাইডার ভিনিগার মিশিয়ে খান। আরও ভালো ফল পেতে এতে মধু মিশিয়েও নিতে পারেন। অ্যাপেল সাইডার ভিনিগার অ্যান্টিঅক্সিড্যান্টের কাজ করে।

গরম পানিতে লেবু-মধুর মিশ্রণ: গরম পানিতে লেবু-মধুর মিশ্রণ কেবল শরীরের চর্বিই ঝরায় না, লিভারের পাশে জমে থাকা চর্বিকেও দূর করতে তা সক্ষম।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *